দাফনের সময় পলিথিনে ভেসে উঠল ‘লা ইলাহা ইল্লাল্লাহু মুহাম্মাদুর রাসুলুল্লাহ’


দুইদিনের শিশু আবু রায়হান মারা যাওয়ায় দাফন করা হবে। কবর খোড়া সম্পন্ন। হঠাৎই বৃষ্টি নামে। কবর খোড়ার কাজে নিয়োজিত মানুষগুলো কবরটি বৃষ্টির পানিতে যাতে না ভিজে তার জন্য সাদা পলিথন দিয়ে ঢেকে দিল। ঠিক তখনই হঠাৎ পলিথিনের উপর কালো কালী দিয়ে লেখার মতো ভেসে উঠলো আরবি হরফে ‘লা ইলাহা ইল্লালাহু মুহাম্মাদুর রাসুলুল্লাহ’। আরও দেখা গেল পলিথিনের উপর আরবি বিভিন্ন হরফ এবং একটি মিনার আকৃতির ছবি।

অবাক করার মতো হলেও ১১ জুলাই মঙ্গলবার বিকাল পাঁচটার দিকে ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ পৌরসভার বলিদাপাড়ার কবরস্থানে এ ঘটনাটি উপস্থিত লোকজন দেখেন এবং তা ছবি ও ভিডিও করে রাখেন। কালীগঞ্জের প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পদাক জামির হোসেনের ছোট ভাই ইমদাদুল হক ইন্তার দুইদিন বয়সী ছেলে আবু রায়হানের দাফনের সময় এ দৃষ্টি হয়।

মৃত শিশুর চাচা সাংবাদিক জামির হোসেন জানান, সোমবার কালীগঞ্জের একটি ক্লিনিকে তার ছোট ভাই ইমদাদুল হক ইন্তার স্ত্রী একটি ছেলে সন্তান প্রসব করে। শিশুটি অসুস্থ থাকায় তাকে যশোরের একটি বেসরকারি হাসপাতালে নেওয়ার পর সে মারা যায়। এর পর মঙ্গলবার বিকালে তার জানাজার পর দাফন করার জন্য বলিদাপাড়া হাসপাতাল সড়কের কবরস্থানে কবর খোড়া হয়। এ সময় বৃষ্টি নামলে স্থানীয় মানুষ কবরটি সাদা পলিথিন দিয়ে ঢেকে দেয় যাতে পানি না ঢোকে। তখনই পলিথিনের উপর এমন দৃশ্য দেখা যায়।

তিনি আরও জানান, কিছুক্ষনের মধ্যে ‘লা ইলাহা ইল্লালাহু মুহাম্মাদুর রাসুলুল্লাহ’ শব্দটি মুছে যায়। তবে আরবি হরফগুলো ও মিনার আকৃতির ছবিটি বেশ কিছুক্ষণ ছিল। বিষয়টি স্থানীয়রা ভিডিও ধারণ করে এবং ছবি তোলে। এরপর পরই পলিথিনটি কবরের উপর ঢেকে দিয়ে শিশু আবু রায়হানের দাফন করা হয়।

স্থানীয়রা এটিকে অলৌকিক ঘটনা বলে মনে করছে।

অন্য বিডি আপডেট